মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০২৪, ০২:২৯ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম ::
সাতক্ষীরায় জেলা পরিষদের আয়োজনে অনুদানের চেক ও দুঃস্থ, অসহায়দের মাঝে ঈদ সামগ্রী বিতরন সাতক্ষীরায় ঈদের জামাত কোথায় কখন অনুষ্ঠিত হবে ঈদুল আযহা : রাত পোহালেই ঈদ ঃ শেষ মুহুর্তের চেষ্টা পছন্দের গরু ছাগল সংগ্রহের ঃ গ্রামে গ্রামে হাটে বাজারে ও চলছে গরু ছাগল কেনা বেচা কালিগঞ্জের প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষককে জাঁকজমকপূর্ণ বিদায় সংবর্ধনা শ্যামনগর আটুলিয়া সংসদ উপজেলা চেয়ারম্যানের সংবর্ধনা প্রদান সাতক্ষীরায় ঈদে সড়কে শৃংখলা ও সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে মোবাইল কোর্ট মেধাবী শিক্ষার্থীদের মাঝে শিক্ষাবৃত্তি প্রদান কৈখালীতে ঘুর্ণিঝড় রেমালের আঘাতে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ কালিগঞ্জের তেঁতুলিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষককে জাঁকজমকপূর্ণ বিদায় সংবর্ধনা প্রদান মানব কল্যাণে কাজ করছে প্রজ্ঞা ফাউন্ডেশনঃ নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান আনন্দ মোহন বিশ্বাস

অজগরের পেটে নারীর মরদেহ উদ্ধার

দৃষ্টিপাত ডেস্ক :
  • আপডেট সময় বুধবার, ২৬ অক্টোবর, ২০২২

এফএনএস বিদেশ : ইন্দোনেশিয়ার জাম্বি প্রদেশে এক নারীকে হত্যার পর তার পুরো মরদেহ গিলে ফেলেছে একটি অজগর। স্থানীয় সংবাদমাধ্যমের বরাতে বিবিসি এখবর জানিয়েছে। খবরে বলা হয়েছে, রোববার সকালে রাবার বাগানে কাজ করতে বের হয়েছিলেন ৫০ বছর বয়সী নারী জাহরাহ। কিন্তু রাতে কাজ থেকে না ফেরায় নিখোঁজ বলে সন্দেহ করা হয় এবং খোঁজ পেতে তল­াশী চালানো হয়। একদিন পর গ্রামবাসীরা একটি অজগর দেখতে পান, যার পাকস্থলী বিশাল। পরে স্থানীয়রা সাপটিকে হত্যা করেন এবং সাপের পেটে নারীর মরদেহ খুঁজে পান। বেতারা জাম্বি পুলিশ প্রধান একেপি এস হারেফা স্থানীয় সংবাদমাধ্যমকে বলেছেন, সাপের পাকস্থলীতে নারীর মরদেহ পাওয়া গেছে। উদ্ধারের সময় মরদেহ পূর্ণাঙ্গ অবস্থায় ছিল। তিনি জানান, মৃতের স্বামী রোববার রাতে তার কিছু পোশাক ও যন্ত্রপাতি খুঁজে পেয়েছেন। এগুলো দিয়ে ওই নারী রাবার বাগানে কাজ করতেন। এগুলো পাওয়ার পর তার খোঁজে তল­াশী শুরু হয়। সোমবার ১৬ ফুট দীর্ঘ সাপটিকে দেখতে পান গ্রামবাসীরা। তারা সাপটিকে ধরার পর হত্যা করে। হারেফা বলেন, গ্রামবাসীরা সাপের পেট কাটার পর সেখান থেকে জাহরাহের মরদেহ বেরিয়ে আসে। এমন ঘটনা বিরল হলেও ইন্দোনেশিয়ায় এটি প্রথম ঘটনা নয়। এর আগেও অজগর কর্তৃক মানুষকে হত্যার পর খেয়ে ফেলার ঘটনা ঘটেছে। ২০১৭ ও ২০১৮ সালে এমন দুটি ঘটনার খবর জানা গেছে। অজগর তাদের খাবার পুরোটাই গিলে ফেলে। তাদের চোয়ালের পেশী খুব নমনীয়। ফলে তারা বড় শিকার গিলে ফেলতে এগুলো প্রসারিত করতে পারে। এক বিশেষজ্ঞ অতীতে বিবিসিকে বলেছিলেন, অজগর সাধারণ ইঁদুর ও অন্যান্য প্রাণীকে খেয়ে থাকে। কিন্তু একপর্যায়ে তারা নির্দিষ্ট আকারে পৌঁছে গেলে তারা আর ইঁদুর খায় না। কারণ ইঁদুর খেয়ে তাদের ক্যালোরির প্রয়োজনীয়তা পূরণ হয় না। ওয়াইল্ডলাইফ রিজার্ভস সিঙ্গাপুরের কর্মকর্তা ম্যারি-রুথ ল বলেন, কার্যত তারা যত সম্ভব বড় শিকারের খোঁজ করে। এসব শিকারের মধ্যে রয়েছে শুকর বা এমনকি গরুও।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2013-2022 dainikdristipat.com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com