বুধবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০২২, ০৭:৩৫ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম ::
সুন্দরবন সুন্দর নেই, ভাল নেই ঃ দায়িত্বশীলদের দায়িত্বহীনতা \ বনখেকোরা বৃক্ষ নিধন ও জীব বৈচিত্র্য নিধন করছে আওয়ামী লীগ বিরোধী অপপ্রচারের জবাব দিতে ছাত্রলীগের প্রতি আহŸান প্রধানমন্ত্রীর কৃষকরা সম্মিলিত ভাবে কাজ করলে দেশের মানুষের খাদ্যের অভাব হবেনা \ বীজ-সার বিতরণ উদ্বোধন কালে এমপি রবি সাতক্ষীরায় অপদ্রব্য মিশিয়ে নকল দুধ তৈরীর ঘটনায় ১ ব্যক্তিকে ২০ হাজার টাকা জরিমানা টাইব্রেকারে স্পেনকে বিদায় করে মরক্কোর ইতিহাস আজ সাতক্ষীরা মুক্ত দিবস দক্ষিণ কোরিয়াকে বিধ্বস্ত করে কোয়ার্টার ফাইনালে ব্রাজিল আশাশুনি উপজেলা চেয়ারম্যানের সাথে গ্রাম ডাঃ কল্যাণ সমিতির মতবিনিময় বাংলাদেশ এখন আদর্শ বিনিয়োগের কেন্দ্র -প্রধানমন্ত্রী বিজয়ের মাস ডিসেম্বর

কলারোয়ায় পশু হাসপাতালের জায়গা দখল নির্মিত হচ্ছে দ্বিতল ভবন

দৃষ্টিপাত ডেস্ক :
  • আপডেট সময় সোমবার, ১১ এপ্রিল, ২০২২

কলারোয়া (সাতক্ষীরা) প্রতিনিধি \ সাতক্ষীরার কলারোয়ায় সড়ক ও জনপদের জায়গা দখলমুক্ত করার দাপ্তরিক নির্দেশনা থাকলেও সকল নির্দেশনা উপেক্ষা করে প্রশাসনের নাকের ডগায় সড়ক ও জনপদের জায়গা দখলে নিয়ে অদৃশ্য ক্ষমতায় নির্মিত হচ্ছে ঝুকিপূর্ণ দ্বিতল ভবন। শনিবার (৯ এপ্রিল) সকালে উপজেলা পৌর সদরের পশু হাসপাতালে সামনে সরেজমিনে মহাসড়কের জায়গায় অবৈধ ভাবে ভবন নির্মানের এমন দৃশ্য দেখা যায়। অভিনব কৌশল অবলম্বন করে সরকারি জায়গা দখলে নিয়ে ভবন নির্মানের এমন কারসাজিকে প্রশ্নবিদ্ধ করছে সুশীল সমাজের নাগরিক। অন্যদিকে উপজেলা পশু হাসপাতালের মধ্যে নির্মাণাধীন ভবনের যত্রতত্র ইট পাথর এবং ময়লা-আবর্জনা ও মিনি পিক-আপ গাড়ি রেখে দখল করা হয়েছে সরকারি হাসপাতালের বেশ কিছু জায়গা। সেখানে নির্মাণাধীন ভবনের যত্রতত্র ইট পাথর এবং ময়লা-আবর্জনা ও ২৪ ঘন্টা গাড়ি পার্কিং করে রাখা হচ্ছে। এমনকি সরকারি ছুটির দিন থাকলেও হরহামেশাই তালা খুলে হাসপাতালের মধ্যে যাতায়াত করছে ভবন নির্মানের সাথে জড়িত ব্যক্তিরা। যদি প্রশাসনের নাকের ডগায় ও সরকারি পশু হাসপাতালের মধ্যে এমন ভাবে সরকারি জায়গা দখল হয় এবং সেখানে অবৈধভাবে স্থানীয় পৌরসভা, সড়ক ও জনপথ বিভাগের অনুমতি ছাড়াই ঝুঁকিপূর্ণ ভাবে দ্বিতল ভবন নির্মাণ হয় তাহলে আইনের উপর থেকে মানুষ আস্থা হারাবে। সরকারি জায়গা দখল নিয়ে মানুষের চলাচলের ব্যস্ততম রাস্তা অবৈধভাবে দখলদারিত্বের সাথে যারা লিপ্ত হচ্ছে তাদের সকলকে আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি করেছেন সুশাসনের জন্য নাগরিক সুজন। তালিকাভুক্ত রাজাকারের ছেলের ছত্রছায়ায় ও সার্বিক ব্যবস্থাপনায় মহাসড়কের সরকারি জায়গা দখলের অভিযোগ উঠেছে উপজেলার হিজলদি এলাকা থেকে উঠে আসা পৌরসদরের গদখালী এলাকার ইয়াসিন আলির ছেলে আলম হোসেন ও জালালাবাদ ইউনিয়নের ঘরচালা কাশিয়াডাঙ্গার মুনতাজ রাজাকারের ছেলে কথিত সাংবাদিক পরিচয় ধারি কামরুজ্জামানের বিরুদ্ধে। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক স্থানীয়রা বলেন, প্রশাসনের নাকের ডগায় সরকারি জায়গা দখল হচ্ছে আবার সেখানেই বহুতল ভবনও নির্মাণ হচ্ছে এসকল নেক্কারজনক কাজের সাথে যে বা যারাই জড়িত তাদেরকে আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির প্রয়োজন। একদিকে সরকারি রাস্তা দখল করে বহুতল ভবন নির্মান করছে অপরদিকে পশু হাসপাতালের জায়গাও দখল করে অবাধে মালামাল রাখছে তারা এ যেন মগের মুল­ুক পেয়েছে। হাসপাতাল কতৃপক্ষ বা প্রশাসন কি বিষয়টি দেখছে না। এ বিষয়ে বক্তব্য নিতে অভিযুক্ত আলম হোসেনের সাথে মুঠোফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করার চেষ্টা করলে তার মোবাইল ফোনটি বন্ধ থাকায় বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি। কলারোয়া উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডক্টর অমল কুমার সরকার বলেন, হাসপাতালে জায়গা দখল মুক্ত করার জন্য তাদেরকে বারবার বলা হলেও তারা কোনো কথাই তোয়াক্কা করছে না। অবাধে তারা চলাফেরা করছে এমনকি তাদের মালামাল ও অবৈধভাবে রাখছে তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ইউএনও জুবায়ের হোসেন চৌধুরী বলেন, মহাসড়কের রাস্তার জায়গা দখল করে বহুতল ভবন নির্মাণ করার অভিযোগে সরোজমিনে গিয়ে নির্মাণাধীন কাজ বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। সরকারি জায়গা দখলে নিয়ে যাতে তারা অবৈধভাবে বহুতল ভবন নির্মাণ করতে না পারে সে জন্য তাদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2013-2022 dainikdristipat.com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com