মঙ্গলবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০১:৩৩ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম ::
পঞ্চগড়ে নৌকাডুবি: ২৪ জনের লাশ উদ্ধার, নিখোঁজ অনেকে বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ আজ বিশ্বের রোল মডেল \ মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক এমপি সাতক্ষীরা মেডিকেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন দগ্ধ রোগীদের দেখতে যান নাগরিক কমিটির নেতৃবৃন্দ সিন্ডিকেটের কারসাজিতে অস্বাভাবিক বেড়েছে রড ও সিমেন্টের দাম নিউইয়র্ক থেকে ওয়াশিংটন ডিসি পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রীকে মুক্তিযোদ্ধা সন্তান সংসদের ফুলেল শুভেচ্ছা প্রদান প্রাইভেট ক্লিনিক এন্ড ডায়াগনস্টিক ওনার্স এসোঃ’র কমিটি গঠন সাতক্ষীরায় এমপি রবি ফুটবল টুর্নামেন্টের প্রথম রাউন্ডের শেষ খেলায় \ সাতক্ষীরা সদরকে হারিয়ে ধুলিহর ইউনিয়নের জয়লাভ কালিগঞ্জে ভগ্নিপতি হত্যা মামলা \ প্রধান আসামী ফজর আলী আটক ৪ বিভাগে বৃষ্টি বাড়তে পারে, উত্তরে কমতে পারে তাপমাত্রা

কালিগঞ্জে উন্নত জাতের গাভী পালন করে সাবলম্বী আছমা খাতুন

দৃষ্টিপাত ডেস্ক :
  • আপডেট সময় শনিবার, ২৪ সেপ্টেম্বর, ২০২২

শেখ শরিফুল ইসলাম কালিগঞ্জ থেকেঃ কালিগঞ্জ উপজেলার ছনকা গ্রামের আছমা খাতুন উন্নত জাতের গাভী হলেস্টান ফ্রিজিয়ান ১০০ হামার জাতের গাভী পালন করে সাবলম্বি হয়েছেন। তিনি দৈনিক দৃষ্টিপাত কে জানান, গত কয়েক বছর যাবৎ আমারা গরু পালন করে আসছি। উন্নত গাভীর জাত সংগ্রহ করতে অনেকটা দেরী হওয়ায় আমাদেরকে অনেক লোকসান হয়েছে। শুধু তাই নয় কালিগঞ্জ উপজেলা প্রানী সম্পদ অফিসের কর্মকর্তাদের ঘড়িমসি ও খামখেয়ালীপনা ও অব্যাবস্থাপনায় এলাকায় এখন গরু পালনে অনেকে অনিহা প্রকাশ করেছে। তারই মধ্য থেকে আমরা অনেক কষ্ট করে এ জাতের গরু সংগ্রহ করে কিছুটা হলে ও সাবলম্বির পথে। গত ২ বছর যাবত আমারা পবিত্র ঈদুল আযহায় বড় জাতের ষাঁড় বিক্রী করে মোটা অংকের অর্থ পেয়েছি। এখন গোয়ালে উন্নত জাতের ষাঁড় সহ দুধের গাভি আছে যাহা থেকে আমাদের পরিবার দুধ সংগ্রহ করে প্রতিদিন নগত টাকা পেয়ে থাকি। তাতের আমাদের সংসারে স্বচ্ছলতা ফিরে এসেছে।গোয়ালে এখন ২৮ থেকে ৩২লিটার দুধের জাতের বকনা বাছুরে কালেকশন আছে যাহা আমারা প্রায় ১০ বছরের উদ্ধে উক্ত জাতের বাছুর কালেকশন করার চেষ্টা করে ও পায়নি। আর এখন তো গো খাদ্যের প্রচুর মূল্য তার উপর ইউক্রেন রাশিয়া যুদ্ধ বাঁধার পর থেকে আর ও খাদ্যের মূল্য বৃদ্ধি । করোনা কালীন সময় দেশ রতœ শেখ হাসিনার সরকার খামারীদের জন্য প্রনোদনা দিলে ও কালিগঞ্জ উপজেলার প্রানী সম্পদ অফিসের স্বাগতিক বলে পরিচিত এক এক্স স্টাফ, স্থানীয় বাড়ী হওয়ার সুবাদে তিনি আফিসের অন্যান্য স্টাফদেরকে এক রকম জিম্মি করে স্বজনপ্রীতির মাধ্যমে প্রকৃত খামারীদের কে বঞ্চিত করে অখামারীদের মাঝে তার ইচ্ছায় সুয়োগ সুবিধা দিয়ে আসতো।নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক উপজেলা প্রানী সম্পদ আফিসের একজন এসব কথাগুলো জানান। কালিগঞ্জ প্রানী সম্পদ কর্মকর্তার মোবাইলে ০১৭১২ ৬৬৪৩০৯ বার বার যোগাযোগ করার পর ফোন রিসিফ না হওয়ায় কথা বলা সম্ভব হয়নি। উপজেলার ১২টি ইউনিয়নে যদি প্রানী সম্পদ অফিসের সঠিক তত্ববধান ও কর্মকান্ড অব্যাহত রাখে তবে প্রকৃত খামারীগন আরও উৎসাহিত হবে এবং এ সম্পদ উত্তরাউত্তর বৃদ্ধি জন্য খামারীগন বিশেষ অবদান রাখবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2013-2022 dainikdristipat.com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com