রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪, ০৯:৫৬ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম ::
দিল্লির সঙ্গে পানি বন্টন, নিরাপত্তা ও বাণিজ্য বিষয়ে আলোচনা হয়েছে: শেখ হাসিনা দেবহাটা উপজেলা চেয়ারম্যান আলফেরদৌস আলফাকে পারুলিয়া ইউনিয়ন পরিষদের পক্ষে সম্বর্ধনা ইসরাইলি হেলিকপ্টারে ক্ষেপনাস্ত্র হামলা মথুরেশপুরের মসজিদ হতে মাইকের ব্যাটারী চুরি সাতক্ষীরায় সড়ক দুর্ঘটনা রোধকল্পে মোবাইল কোর্ট শ্যামনগর গাবুরায় খোলপেটুয়ার বেড়িবাঁধে ভয়াবহ ভাঙন, আতংকে এলাকাবাসী প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে শিশু লামিয়ার চিকিৎসার সহায়তা প্রদান সাতক্ষীরা সদরের নবনির্বাচিত এমপি আশু ও উপজেলা চেয়ারম্যান বাবুকে সংবর্ধনা প্রদান পাইকগাছার ১০ হাজার কৃষকের মাঝে নারিকেল চারা, বীজ ও রাসায়নিক সার বিতরণ সুস্থ্য সবল জাতি গঠনে মাছের উৎপাদন বাড়ানোর বিকল্প নাই…এমপি রশীদুজ্জামান

গাজা যুদ্ধ ব্যর্থতায় ইসরাইলি মন্ত্রীর পদত্যাগ

দৃষ্টিপাত ডেস্ক :
  • আপডেট সময় মঙ্গলবার, ১১ জুন, ২০২৪

দৃষ্টিপাত ডেস্ক ॥ সারা বিশ্ব মিডিয়ায় ব্যাপক ভাবে জড়িয়ে পড়েছে দখলদার ইসরাইলি বাহিনীর সদস্যরা নির্বিচারে গণহত্যা চালিয়ে যে তিন শতাধীক ফিলিস্তিনিকে হত্যা করার ঘটনা। গত মাসে হাজার হাজার ফিলিস্তিনিকে হত্যা করে ও দখলদার ইসরাইলি বাহিনী চার বন্দীকে মুক্তকরতে পেরেছে। হামাসের পক্ষ হতে বলা হয়েছে দখলদার ইসরাইলি বাহিনীর জন্য চার বন্দীকে মুক্ত করার ঘটনা কোন ভাবেই সাফল্য নয় বরঞ্চ এটা তাদের জন্য চরম ব্যর্থতা। এই ব্যর্থতা যতই দিন যাবে ততোই বেড়ে চলবে। হামাসযোদ্ধারা কোন অবস্থাতেই দখলদার ইসরাইলি বাহিনীকে গাজায় জয়ী হতেদেবে না। হাজার হাজার হামাস যোদ্ধারা প্রাণ পনে লড়াই করছে দখলদারদের প্রতিহত করনের লক্ষে দখলদার ইসরাইলি বাহিনীর সদস্যরা গতকাল ও রাফা শহরে পশ্চিম এলাকাতে সাজোয়া যান ও ট্রাঙ্ক বহর নিয়ে নিরস্ত্র ফিলিস্তিনিদের উপর ঝাপিয়ে পড়ে এ সময় দখলদার বাহিনীর একটি দল হামাসের পাতানো ফাঁদে পড়ে হতাহতের শিকার হয়। হামাস প্রধান ইসমাইল হানিয়া আবারও দখলদার ইসরাইলি বাহিনীকে হুশিয়ারী উজচ্চার করেন বলেছে আট মাসে ৩৭ হাজার ফিলিস্তিনি হত্যাকরে চার জিম্মি মুক্তকরার ক্ষেত্র ইসরাইলের জয় নয় গাজা ভূ-খন্ডে দখলদার ইসরাইলি বাহিনীকে অবশ্যই পরাজয় বরন করতে হবে। তিনি আরও বলেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সহায়তায়কেবলমাত্র দখলদার বাহিনীর চা ইসরাইলি জিম্মিকে মুক্ত করতে পেরেছে। দখলদার বাহিনী চার জিম্মিমুক্ত করনের ক্ষেত্রে অভিনব পন্থা অবলম্বন করেছে। কাতার ভিত্তিক টেলিভিশন চ্যানেল আল জাজিরা জানিয়েছে দখলদার ইসরাইলি বাহিনীর কমান্ডো সেনারা একটি ত্রানবাহি গাড়ীতে করে মহিলাদের পোষাকপরিধান করে উক্ত নুসেরাত আশ্রয় শিবিরে আশ্রয় গ্রহণ করার জন্য নিবেদন করে এবং উক্ত নুসেরাত আশ্রয় শিবিরে আশ্রয় গ্রহণ করার জন্য নিবেদন করে এবং উক্ত গাড়ীর আশপাশ ও পৃথক গাড়ীতে আসা ইসরাইলি বাহিনীর কমান্ডোদলের সদস্যরা হামাসের পোষাক সহ হেলমেন্ট ও নেম প্লেট সম্বলিত ড্রেজ পরিধান করা হয়। ইসরাইলি নারী কমান্ডো দলের সদস্যলা গাজার ফিলিস্তিনি মহিলাদের পোষাক পরিধান করে উক্ত এলাকায় অবস্থান গ্রহন করে। মুহুর্তের মধ্যে জিম্মি থাকাদুই বাড়ী লক্ষ্য করে ও আশ্রয় শিবিরে আশ্রয়গ্রহণকারী ফিলিস্তিনিদের উপর মুহুরমুহুর গুলিবর্ষন করতে থাকে ততোক্ষনে দুই শতাধীক ফিলিস্তিনি নারী, পুরুষ শিশু নিহত হয়। আল সিফা হাসপাতালের এক চিকিৎসক ইসরাইলি কমান্ডোদের হামলাকে ছায়াছবির সাথে তুলনা করেছে যে ছায়াছবি কেবল মাত্র মৃত্যু আর ধ্বংস লিলাকে সমর্থন করে। এদিকে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদ আবারও যুদ্ধ বিরতি বিসয়ে অধিবেশনের আহ্বান জানিয়েছেন উক্ত অধিবেশনে হামাস ইসরাইলি ক্ষুদ্ধ বিরতিরকার্যকরে প্রস্তাব যেন গৃহীত হয় সেবিষয়টি নিশ্চিত করনের জন্য জাতিসংঘের ুিনরাপত্তা পরিষদকে আহবান জানিয়েছেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। এদিকে ফ্রান্স ও তুরস্ক একই সুরে একই ভাষায় কথা বলেছে এবং ফিলিস্তিনিদের উপর গণহত্যা বন্ধের আহবান জানিয়েছেন। উল্লেখ্য ইসরাইল কর্তৃক নিরীহ ফিলিস্তিনিদের উপর গণহত্যা, পরিচালনার পর থেকেই সোচ্চার এবং ইসরাইলি প্রধানমন্ত্রী নেতানিয়াহুকে বারবার বিভিন্ন ধরনের মানবতা বিরোধী নামে অবহিত করেছে। ইসরাইলি মন্ত্রীসভার মধ্যে স্পষ্ট বিভাজন দেখা দিয়েছে যার প্রেক্ষাপটে দখলদার ইসরাইলের যুদ্ধকালীন মন্ত্রীসভার অন্যতম প্রভাবশালী সদস্য এবং দেশটির মধ্যপন্থী রাজনীতিবিদ হিসেবে খ্যাত বোনগ্যাঞ্জ পদত্যাগ করেছেন। পতদ্যাগী মন্ত্রী বেনিগ্যাঞ্জ সাধারন ইসরাইলিদের মাঝে অতি পরিচিত ও জনপ্রিয়। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও তাকে বিশেষ ভাবে মুল্যায়নের খাতায় অন্তুভূক্ত করেছে। ইসরাইলি পোস্ট জানিেেছ গাজা যুদ্ধের সঠিক রোডম্যাপ ঘোষনা না করায় ও এই যুদ্ধে ইসরাইলের ব্যর্থতার কারনে তিনি পদত্যাগ করেছেন। বেনিগ্যাঞ্জএর পদত্যাগ দৃশ্যতঃ ইসরাইলি প্রধানমন্ত্রী নেতানিয়াহুকে চাপের মুখে ফেলবে। এদিকে হিজবুল্লাহর বিরুদ্ধে ইসরাইল এর সেনা বাহিনী সর্বাত্মক যুদ্ধ ঘোষনা করলেও হিজবুল্লাহ যোদ্ধারা প্রতিনিয়ত এবং প্রতিমুহুর্ত ইসরাইলের অভ্যন্তরে হামলা পরিচালনা করছে। গতকাল ও মার্কিন যুক্তরাষ্টের প্রেসিডেন্ট এর সরকারি বাসভবনের সামনে হাজার হাজার মাকির্নীরা ইসরাইল বিরোধী বিক্ষোভ প্রদর্শন করেছে। দখলদার বাহিনীর গণহত্যা পরবতি হামলায় আহতদেরকে চিকিৎসা ব্যবস্থা বা চিকিৎসাপ্রদান করতেপারছেন না গাজার হাসপাতালগুলো কারন অধিকাংশ হাসপাতাল ধ্বংসস্তুপে পরিনত হয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2013-2022 dainikdristipat.com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com