রবিবার, ২২ মে ২০২২, ০৭:২৩ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম ::
বারবার খননেও বিবর্ণ প্রাণহীন প্রাণসায়ের \ ঘটাতে হবে প্রাণসঞ্চার \ হতে পারে পর্যটন স্পট বন্ধ হবে না পদ্মায় ফেরি ও স্প্রিডবোর্ট চলাচল \ লঞ্চ চলার বিষয়টি বিবেচনাধীন সাতক্ষীরায় জ্যৈষ্ঠ মাসেও বৈশাখের চোখ রাঙ্গানো ঝড় \ টানা বৃষ্টিতে জনজীবন বিপর্যস্থ জেলা পরিষদ প্রশাসক আলঃ নজরুল ইসলামের সাথে জুয়েলার্স সমিতির সৌজন্য সাক্ষাৎ ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে তাৎক্ষণিক ভাবে গ্রেপ্তার না করার নির্দেশ কলারোয়ায় ভুমি সেবা সপ্তাহে ভুমি মালিকদের সেবা না দিয়ে সেবা বুথে চলছে ধুমপানের আড্ডা শ্যামনগর সরকারি মহসিন কলেজের চলমান কাজ পরিদর্শন কালিগঞ্জে বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা জাতীয় গোল্ডকাপ টুর্নামেন্টের উদ্বোধন কৃষি পণ্য রপ্তানীতে বাংলাদেশ এবং অর্থনৈতিক সাফল্য দেবহাটার শ্রেষ্ঠ অধ্যক্ষ আবুল কালাম

ঘরে ফেরার সময় এসেছে, ট্রাকচালকদের বললেন ট্রুডো

দৃষ্টিপাত ডেস্ক :
  • আপডেট সময় শনিবার, ১২ ফেব্রুয়ারী, ২০২২

এফএনএস বিদেশ : কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো আন্দোলনকারী ট্রাকচালকদের হুঁশিয়ার করে দিয়ে বলেন, আমরা আপনাদের দাবিগুলো শুনেছি। এখন আপনাদের বাড়ি ফেরার সময় এসেছে। কোভিড-১৯ সংক্রান্ত সরকারি আদেশের বিরুদ্ধে দেশটিতে আন্দোলন করছেন ট্রাকচালকরা। খবর আলজাজিরার। গত শুক্রবার ট্রুডো বলেন, নিশ্চয়ই আপনি আপরাধমূলক কাজের কারণে লাইসেন্স হারাতে চান না যা আপনার চাকরি, জীবনযাত্রা এবং যুক্তরাষ্ট্রসহ অন্য দেশে ভ্রমণের ক্ষেত্রে প্রভাব ফেলবে। তিনি আরও বলেন, কোভিড থেকে মানুষকে নিরাপদ রাখার জন্য যে ব্যবস্থা তা সম্পর্কে আপনাদের হতাশার কথা আমরা শুনেছি। তবে এখন সময় ঘরে ফিরে যাওয়ার। ট্রাকচালকদের অবরোধের কারণে কানাডার অন্টারিও প্রদেশের প্রধান ডগ ফোর্ড সেখানে জরুরি অবস্থা জারির পর ট্রুডো এ মন্তব্য করলেন। একই সঙ্গে প্রদেশের এক বিচারক গত শুক্রবার স্থানীয় সময় সন্ধ্যা ৭টার মধ্যে একটি আন্তর্জাতিক সেতু থেকে অবরোধ তুলে নেওয়ার জন্য বলেছেন। এদিকে ট্রুডো ও ডগ ফোর্ড যারা পণ্য পরিবহন ও মানুষের যাতায়াতে বাধা দেবে তাদের কঠোর শাস্তির হুমকি দিয়েছেন। হোয়াইট হাউসের মুখপাত্র জেন সাকি বলেন, ট্রুডো যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের সঙ্গে কথা বলেছেন সীমান্তে আন্দোলন নিয়ে। এ সময় ট্রুডো আইন প্রয়োগের মাধ্যম দ্রুত পদক্ষেপ নেওয়ার প্রতিশ্র“তি দেন। করোনার টিকা নেওয়ার বিষয়ে সরকারি বিধিনিষেধের বিরুদ্ধে জানুয়ারিতে আন্দোলনে নামে ট্রাকচালকরা। এরপর দেশটির রাজধানী অটোয়ার কেন্দ্রস্থল ৪শ’র বেশি ট্রাক দাঁড় করিয়ে অবরুদ্ধ করে রাখা হয়েছে। এ ছাড়া যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডার মধ্যে বাণিজ্যের গুরুত্বপূর্ণ পথ অ্যাম্বাসেডর সেতু বন্ধ হয়ে যায়; যার মাধ্যমে দুই দেশের প্রায় ২৫ শতাংশ বাণিজ্য সম্পন্ন হয়।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2013-2022 dainikdristipat.com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com