শনিবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২২, ১০:৪৯ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম ::
চিংড়ীর বাজার মূল্য হ্রাস \ গভীর সংকটে চিংড়ী শিল্প \ হাসি নেই চাষীদের মুখে \ অর্থনীতিতে বিরুপ প্রভাব ঝাউডাঙ্গায় শেখ ফজলুল হক মনি স্মৃতি ফুটবল টূর্ণামেন্ট উদ্বোধন যশোরে হোটেলে ঢুকলো কাভার্ড ভ্যান, বাবা-ছেলেসহ নিহত ৫ রোমাঞ্চকর জয়ে নকআউটে দক্ষিণ কোরিয়া জিতেও চোখের জলে সুয়ারেস-কাভানিদের বিদায় সাতক্ষীরায় বিভিন্ন কর্মসূচীর মাধ্যমে এনজিও ফাউন্ডেশন দিবস পালিত প্রতিবন্ধী মানুষের উন্নয়নে সকলকে কাজ করতে হবে -প্রধানমন্ত্রী সদর থানা পুলিশের অভিযানে ওয়ারেন্ট ভূক্ত ৩ আসামী আটক শ্যামনগরে শেখ হাসিনা সরকারের উন্নয়নের ধারাবাহিকতা ও সাফল্য প্রচারে উঠান বৈঠকে এমপি জগলুল হায়দার বিজয়ের মাস ডিসেম্বর

পদ্মা সেতু উদ্বোধন ভাগ্য বদলে যাবে সাতক্ষীরা সহ দক্ষিণ অঞ্চলের মানুষের -বীর মুক্তিযোদ্ধা রবি এমপি

দৃষ্টিপাত ডেস্ক :
  • আপডেট সময় রবিবার, ১৯ জুন, ২০২২

স্টাফ রিপোর্টার ঃ সাতক্ষীরা সদর আসনের সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি নৌ কমান্ডো বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি বলেছেন, “জননেত্রী শেখ হাসিনার হাত দিয়ে স্বপ্নের পদ্মা সেতুর উদ্বোধনের মধ্য দিয়ে ভাগ্যের দূয়ার খুলে যাবে সাতক্ষীরাসহ দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের মানুষের। সাতক্ষীরা জেলাসহ ২১ জেলার অর্থনৈতিক অবস্থার আমূল পরিবর্তন ঘটবে। এ অঞ্চলের মানুষের ভাগ্য বদলে যাবে। পদ্মা সেতু দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের খুলনা বিভাগের জেলা সাতক্ষীরাসহ কোটি মানুষের দীর্ঘদিনের একটি লালিত স্বপ্ন। সেই স্বপ্ন বাস্তবে রুপ নিতে যাচ্ছে আগামী ২৫ জুন শনিবার। দিনটি বাংলাদেশের ইতিহাসে চিরস্মরণীয় হয়ে থাকবে। ২৫ জুন সকাল ১০ টায় জাতির জনক বঙ্গবন্ধু কন্যা মানবতার ‘মা’ মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা প্রত্যাশিত স্বপ্নের পদ্মা সেতুর উদ্বোধন করবেন। পদ্মা সেতু নিয়ে দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের মানুষের আশা, স্বপ্ন ও প্রত্যাশা পূরণের বিষয় তুলে ধরে বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি এমপি বলেন, পদ্মা সেতু কেবল দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের নয়, পুরো বাংলাদেশের অর্থনীতির চেহারা বদলে দেবে। সেই সাথে সাতক্ষীরার ভোমরা স্থলবন্দর আমদানী-রপ্তানীতে গতি বৃদ্ধি পাবে। এই সাতক্ষীরা অঞ্চলে গড়ে উঠবে শিল্প প্রতিষ্ঠান ও কলকারখানা। পিছিয়ে পড়া এই অঞ্চলে ব্যবসা-বাণিজ্যের প্রসার বাড়বে। সারাদেশের অর্থনীতিতে এর ইতিবাচক প্রভাব পড়বে। স্বাধীনতার পর থেকে এই সাতক্ষীরা জেলা ছিল অবহেলিত। জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ সরকার গঠনের পর থেকেই সাতক্ষীরাসহ খুলনা বিভাগের সকল জেলায় উন্নয়নের জোয়ার শুরু হয়। বৃহত্তর এই অঞ্চলকে ঢাকার সঙ্গে সরাসরি যোগাযোগ স্থাপনের জন্য জননেত্রী শেখ হাসিনা পদ্মা সেতুর গুরুত্ব অনুধাবন করেই মেঘা প্রকল্প হাতে নেন প্রধানমন্ত্রী। আধুনিক পর্যটনকেন্দ্র, পরিকল্পিত নগরায়ন, যোগাযোগ, অর্থনীতি ও কৃষি খাতের উন্নয়ন, পরিবেশ সুরক্ষা ও দুর্যোগ ঝুঁকিসহ জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবিলাভিত্তিক কার্যক্রম। এতে ওই অঞ্চলের ব্যবসা-বাণিজ্য বিস্তার লাভ করবে কর্মসংস্থান সৃষ্টি হবে। সেতুর ফলে সামগ্রিকভাবে দেশের ব্যবসা-বাণিজ্যের ব্যাপক উন্নয়ন হবে। সব মিলিয়ে এই পদ্মাসেতু আসলেই দেশের মানুষের স্বপ্নের সেতু হয়ে বাস্তবে ধরা দেবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2013-2022 dainikdristipat.com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com