মঙ্গলবার, ০৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০১:৩৭ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম ::
শক্তিশালী ভ‚মিকম্পে তুরস্কে ও সিরিয়ায় নিহত ১৩০০ ছাড়িয়েছে সুন্দরবনের তিন বাঘ টহলফাঁড়ি এলাকায় নিরাপত্তা হীনা নাকি খাদ্যভাব, কি জানান দিতে এসেছিল তারা? সাতক্ষীরা থানা পুলিশের অভিযানে ১৮ পিচ স্বর্ণের বার সহ ১ চোরাকারবারী আটক তিন ফসলি জমিতে প্রকল্প না নিতে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ মুন্সিগঞ্জে র‌্যাবের অভিযানে বাঘের চামড়া উদ্ধার সুন্দরবনের শরবতখালী টহল ফাঁড়িতে দুই বাঘের গর্জন আতঙ্কে বনরক্ষীরা বাঁশদহা আ’লীগের বিশেষ বর্ধিত সভা অনুষ্ঠিত নারায়ণগঞ্জের ফকির এপ্যারেলস পরিদর্শনে বেলজিয়ামের রাণী সাতক্ষীরায় রোজ গার্ডেন স্কুলে বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরনী আমার ভাইয়ের রক্তে রাঙানো

রমজানের আগেই নিত্যপণ্যের দাম কমানোর আহŸান

দৃষ্টিপাত ডেস্ক :
  • আপডেট সময় সোমবার, ২৮ মার্চ, ২০২২

এফএনএস: সিন্ডিকেট ভেঙে রামজানের আগেই দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি রোধ করে রাষ্ট্রকে মানবিক হওয়ার জন্য সরকারের প্রতি আহŸান জানিয়েছে বাংলাদেশ সিভিল রাইটস্ সোসাইটি। গতকাল রোববার বিকেলে রাজধানীর জাতীয় প্রেসক্লাবে ‘মহান স্বাধীনতা দিবস পালন ও দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি রোধে করণীয়’ শীর্ষক আলোচনা সভায় এসব আহŸান জানানো হয়। সভায় সভাপতিত্ব করেন সংগঠনটির চেয়ারম্যান জাকির হোসেন। এতে উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট সাংবাদিক ও মানবাধিকার কর্মী হুমায়ূন কবির, নূরুল আমিন নোমান, এসএম রাজু আহমেদ, ফজলুল হক বাবু, ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়ন একাংশের সদস্য আজিজুল হক মিন্টুসহ সোসাইটির নেতা-কর্মীরা। সভায় বক্তারা বলেন, বিচার বিভাগের স্বাধীনতা এসেছে, কিন্তু তার প্রতিফলন আমরা দেখতে পারছি না। স্বাধীনতার আগে ঘরের দরজা খুলেও ঘুমানো যেত, এখন সেই স্বাধীনতাও নেই। এখন টিসিবির গাড়ির পেছনে মানুষের লাইন দেখলেই বাংলাদেশের চালচিত্র বোঝা যায়। রমজানের আগে বাজারে জিনিসপত্রের দাম কমাতে হবে। সিন্ডিকেট করে যারা দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধি করছে, তাদের সিন্ডিকেট ভাঙতে হবে। তারা বলেন, দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে রাখতে সরকার প্রতিনিয়ত মিটিং করে যাচ্ছে, কিন্তু ফল পাচ্ছি না। গ্যাস-তেলের দাম বাড়ানোয় প্রত্যেকটা পণ্যের দাম বেড়েছে। এর প্রভাব পড়েছে আমাদের উপর। এগুলোকে সরকারের রোধ করতে হবে। চড়া দামে কিনতে হচ্ছে নিত্যপ্রয়োজনীয় এসব দ্রব্যসামগ্রী। এতে নিম্ন ও মধ্য আয়ের মানুষ ক্ষুব্ধ। সমাজে নেমে এসেছে অপ্রত্যাশিত দুর্ভোগ। সভাপতির বক্তব্যে জাকির হোসেন বলেন, এ অবস্থা মোকাবিলায় প্রয়োজনে টিসিবির ট্রাক বাড়ানো যেতে পারে অথবা রেশনিং সিস্টেম চালু করা যেতে পারে। সরকারকে অনুধাবন করতে হবে যে মানুষ ভালো নেই। তাই আমরা চাই রোজার আগেই নিত্যপ্রয়োজনীয় এসব দ্রব্যসামগ্রী সাধারণের ক্রয় ক্ষমতার মধ্যে নিয়ে আসা হোক।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2013-2022 dainikdristipat.com
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com